শব্দ মিলানোর খেলা (দ্বিতীয় প্রহর)

মধ্য রাত।
তার সাতসকাল কল্পনায়
ভাসতে থাকা, সেই অল্প কিছু
মেঘের সাথে, খেই হারানো ঘুমের ডিঙায়
তোমার হাতে তুলোর মত লোম জড়ানো –
গোনার ভুলে ভেড়ার শত
আজকে যদি না ছুঁয়ে যায়
বেড়া ডিঙিয়ে পাশের বাসায়;
শুন্যে এসে থামতে হলে।

কুকুরগুলো আরো ক’ক্ষন ঘুমের গানে
বৃষ্টি নামাক, আলো যখন নামার কথা
না দিয়ে ডাক, পাখির বাসায় কাঁথামুড়ি
নদীর ধনুক-তীর না ভাসায় সূর্য যেন।
অনেক কথার ভিড়
জমানো মাথার ভেতর।
খুব সে ছিলো ধীর অপেক্ষায়
লাঠির মাথায় ভেড়ার শাবক-ঘুম তাড়িয়ে
রাত বাড়িয়ে, রাত বাড়িয়ে।